অনলাইন মার্কেটিং

ইনস্টাগ্রাম মার্কেটিং কি?কিভাবে ইনস্টাগ্রাম মার্কেটিং করতে হয়?

বিসমিল্লাহির রাহমানির রাহিম, আসসালামু আলাইকুম।ইনস্টাগ্রাম কি? ইনস্টাগ্রাম মার্কেটিং কি? কিভাবে করতে হয়? আর করেই বা লাভ টা কি? এসব প্রশ্ন আপনার মনে প্রতিনিয়তঃ জাগ্রত হয়। আপনার মনে থাকা সব প্রশ্নের উত্তর  স্টেপ বাই স্টেপ পাবেন আমার নিবন্ধটিতে। 

নিশ্চয়ই আপনারা কোন না কোন ব্যবসার সাথে জড়িত। হোক সেটা অনলাইনে বা অফলাইনে। অফলাইনে কেউ কেউ বিজনেস করে ক্যারিয়ার গড়ছে। সেম ভাবে অনলাইনেও বিজনেস করে ক্যারিয়ার গড়ছে। অনলাইনে ক্যারিয়ার গড়তে চান তাহলে আপনাদের অনলাইনে দুনিয়ায় সুস্বাগতম। 

কোন বিজনেসে শুরু থেকে শেষ পর্যন্ত যে বিষয়টির উপর লক্ষ্য দিতে হবে তা হল মার্কেটিং।

যে ব্যক্তি সফল হওয়ার জন্য ব্যবসা করে সে জয়ী হয়। আর যদি আপনি সফল হওয়ার জন্য ব্যবসা না করেন তাহলে আপনি অনলাইন মার্কেটিং ব্যর্থ হবেন। 

আপনার যদি কোন ব্যবসা থাকে আর যদি আপনি মার্কেটিং করতে চান। আর এই মার্কেটিং সম্পর্কে আমার পোস্ট জুড়ে থাকবে।

 তো ভিউয়াস,কথা না বাড়িয়ে শুরু করা যাক ইনস্টাগ্রাম মার্কেটিং সম্পর্কে ।

ইনস্টাগ্রাম কি?(What is Instagram)

ইনস্টাগ্রাম কি? এই সম্পর্কে যদি আপনার কনসেপ্ট ক্লিয়ার না থাকে, তাহলে আপনি ইনস্টাগ্রাম মার্কেটিং করে কখনো সফলতা অর্জন করতে পারবেন না।

ইনস্টাগ্রাম হচ্ছে একটা মোবাইল অ্যাপস, যাকে আমরা সোশ্যাল মিডিয়া বলতে পারি। সোশ্যাল মিডিয়া যেমন টুইটার, ফেসবুক ইত্যাদির মত ইনস্টাগ্রামে একটি সোশ্যাল মিডিয়া।

ফেসবুকের মাধ্যমে যেমন অডিও, ভিডিও, টেক্সট শেয়ার করতে পারি। তেমনি ইন্সটাগ্রাম এর মাধ্যমে অডিও, ভিডিও টেক্সট শেয়ার করতে পারব।

ইনস্টাগ্রাম ২০১০ সালে আনুষ্ঠানিকভাবে যাত্রা শুরু করে।শেষ সময়ে ইনস্টাগ্রাম খুবই জনপ্রিয়তা লাভ করেছিল। পরবর্তীতে পৃথিবীর সবচেয়ে সোশ্যাল মিডিয়া ফেসবুক ইনস্টাগ্রাম।কে ১ বিলিয়ন ডলার দিয়ে কিনে নিয়েছিলেন।

এর পরবর্তীতে ইনস্টাগ্রামকে  ফেসবুক পরিচালনা করে। 

 মজার বিষয় হচ্ছে যে, ইনস্টাগ্রাম শব্দটি Instant camera এবং Telegram শব্দটির মিলিত রূপ।

মার্কেটিং কি?

ইনস্টাগ্রাম মার্কেটিং সম্পর্কে বলার আগে মার্কেটিং কি?এই বিষয়ে কনসেপ্ট ক্লিয়ার করতে চাই।

আপনারা হয়তোবা দেখে থাকবেন টিভিতে বিভিন্ন ম্যাগাজিন অনুষ্ঠানের পর এড দেওয়া হয়। এখানে মূলত বিভিন্ন কোম্পানিরা তাদের কোম্পানির প্রোডাক্ট সেল করার উদ্দেশ্যে নানা রকম প্রচার প্রচারণা চালায়।

এখানে আমরা যারা ভিওয়াস তাদের বিজ্ঞাপন গুলো দেখি। নিশ্চয়ই  সেখান থেকে আমরা ধারণা পাই প্রোডাক্টটি কোন কোয়ালিটির?এর চার্জ কত? ইত্যাদি ।তখন প্রোডাক্ট ক্রয়ের জন্য চাহিদা বেড়ে যায়। 

আপনার যদি কোন বিজনেস থাকে তাহলে যে প্রচার প্রচারণা চালাবেন মূলত এসবই মার্কেটিং।

ইনস্টাগ্রাম মার্কেটিং কি ?

মার্কেটিং কি সে সম্পর্কে আপনার একটা মোটামুটি ধারণা তৈরি হয়েছে। ইনস্টাগ্রাম মার্কেটিং কি?  সে বিষয়ে কিছু বলতে চাই।

আপনার বিজনেস এর প্রোডাক্ট গুলো বিক্রি করার জন্য যে কৌশলগুলো অবলম্বন করেন সেটাই মূলত মার্কেটিং। ধরেন আপনার একটা মোবাইল কোম্পানি আছে তো আপনি মোবাইল গুলো বিক্রি করার জন্য টিভিতে বিজ্ঞাপন দিলেন। আর সেই বিজ্ঞাপন দেখে ক্রেতারা আপনার কোম্পানির মোবাইল ফোনগুলো নিতে ইচ্ছু্ত এসবই মার্কেটিং।

এখন আপনার বিজনেসর প্রোডাক্ট গুলো যদি আপনি ইন্সটাগ্রাম এর মাধ্যমে ক্রেতার কাছে শো করেন। আর ক্রেতারা যদি ইনস্ট্রাগ্রামে প্রডাক্টগুলো দেখে ক্রয় করেন এটাই মূলত  ইনস্টাগ্রাম মার্কেটিং।

কিভাবে ইনস্টাগ্রাম মার্কেটিং শুরু করতে হয়।

তো ভিউয়াস এখন আসা যাক মূল টপিকে। কিভাবে ইনস্টাগ্রাম মার্কেটিং শুরু করতে হয়? সে বিষয়ে যদি আপনার কোন ধারনা না থাকে তাহলে ইনস্টাগ্রাম মার্কেটিংয়ের কোন সুফল পাবেন না।

কোন কাজে সফলতা অর্জন করতে হলে, নিয়ম অনুসারে কিছু ধাপ অনুসরণ করতে হবে। ইনস্টাগ্রাম মার্কেটিং কিভাবে করতে হয় তা ধাপে ধাপে বলার চেষ্টা করব। তো আপনারা স্কিপ না করে পুরোটাই পড়বেন।

আপনার প্রোফাইলটি কেমন হওয়া উচিত।

প্রথমে আপনার প্রোফাইলটি প্রফেশনাল প্রোফাইলে রুপ দিতে হবে। কারণ আপনার কোম্পানির প্রোডাক্টগুলো কি রকম, সে বিষয়ে ক্রেতারা আপনার প্রোফাইল দেখে বুঝতে পারবে। 

তাই আপনাকে চেষ্টা করতে হবে, আপনার প্রোফাইলটি একটি প্রফেশনাল প্রোফাইলে রুপ দেওয়ার।

যদি আপনি না জানেন কিভাবে একটা প্রফেশনাল প্রোফাইল তৈরি করা যায়। তো আপনি যে কাজটি করতে পারেন ইনস্টাগ্রাম মার্কেটিংয়ে যারা সফল তাদের প্রোফাইল গুলো অনুসরন করবেন। সেখান থেকে আপনার ইনস্টাগ্রাম মার্কেটিংয়ের প্রোফাইলের উপর একটা সম্যক জ্ঞান তৈরি হবে।

তো এখন আপনার মনে প্রশ্ন জাগতে পারে ভাই প্রফেশনাল প্রোফাইলে না হয় তৈরি করতে পারব। কিন্তু অ্যাকাউন্টটি কিভাবে তৈরি করতে হয়, সেটাই তো এখন আমার অজানা। হুম, ভাই টেনশনের কিছু নাই কিভাবে একাউন্ট তৈরি করতে হয় সে বিষয়ে বলব। 

step-01.প্রথমে আপনার একটা পছন্দের ব্রাউজার ওপেন করুন। এরপর সার্চ ইঞ্জিনে (www.instagram.com) টাইপ করে সার্চ করুন।

step-02. আপনি সরাসরি ইনস্টাগ্রাম এর অফিশিয়াল পেজে প্রবেশ করবেন। আপনি চাইলে পরবর্তী কাজগুলো করতে পারবেন।

ইনস্টাগ্রাম অ্যাপসের মাধ্যমে আবার অ্যাকাউন্টটি তৈরি করে নিতে পারবেন।

step-03.এবার অ্যাকাউন্টটি তৈরি করতে হবে,সেজন্য আপনাকে sing-up লেখা বাটনের পাশে ক্লিক করতে হবে।

step-04.সাইন আপ বাটনে ক্লিক করার পর বেশ কিছু অপশন আপনারা দেখতে পারবেন।  এসব অপশনের মাধ্যমে আপনারা অ্যাকাউন্ট ক্রিয়েট করতে পারবেন।

যেমনঃ ফেসবুক আইডি দিয়ে ও পার্সোনাল নম্বর দিয়ে অ্যাকাউন্ট ক্রিয়েট করতে পারবেন।

note:-এখানে অ্যাকাউন্ট তৈরি করার অনেকগুলো ফর্মুলা থাকলেও, আপনি যে কাজটি করবেন অর্থাৎ কোম্পানির নামে একটি জিমেইল আইডি ক্রিয়েট করবেন। ইমেইল আইডি দিয়ে একাউন্ট ক্রিয়েট করবেন। 

ব্যাস এতোটুকু কাজ করলেই আপনি একটি ইন্সটাগ্রাম অ্যাকাউন্ট তৈরি করতে পারবেন।

প্রফেশনাল একাউন্ট ক্রিয়েট করার টিপস।

হ্যালো ভিউয়ার্স, এতক্ষণ তো জানলেন আপনারা কিভাবে অ্যাকাউন্ট তৈরি করতে হয়। এবার আমি বলবো কিভাবে প্রফেশনাল একাউন্ট তৈরি করতে হয়। তো চলুন শুরু করা যাক।

tips-01. আপনার প্রোফাইলের গুরুত্বপূর্ণ একটি অংশ হচ্ছে, username যার মাধ্যমে আপনাকে খুব  সহজেই চিনতে পারবে।

আপনাকে যে কাজটি করতে হবে,username টি যেন ছোট হয়। এবং নেমটি যেন আপনার বিজনেসের নামে হয়।

tips-02. এ পর্যায়ে আপনাকে একটি প্রফাইল পিকচার সেটআপ করতে হবে। প্রোফাইল পিকচার হিসেবে রাখতে পারেন আপনার কোম্পানির যদি কোন লোগো থাকে সেটাই।

এর পাশাপাশি আপনাকে বিজনেস রিলেটেড বায়োডাটা লিখতে হবে।

tipe-03. পরিশেষে আপনার সদ্য ইনস্টাগ্রাম একাউন্টটিকে,বিজনেস একাউন্টে কনভার্ট করতে হবে। তাহলে আপনি অনন্য ফিচারগুলো সুবিধা ভোগ করতে পারবেন।

নিচের স্টেপগুলো ফলো করে পার্সোনাল একাউন্ট থেকে বিজনেস একাউন্ট এ কনভার্ট করতে পারবেন।

Setting-Account-Switch to a professional account.

কিভাবে ইনস্টাগ্রাম মার্কেটিং করবেন।

উপরের লেখাগুলো যদি আপনারা স্ক্রিপ না করে থাকেন। তাহলে ইনস্টাগ্রাম মার্কেটিং সম্পর্কে আপনাদের অনেকটা ধারণা তৈরি হয়েছে।

এখন জানতে হবে, কিভাবে ইনস্টাগ্রাম মার্কেটিং করবেন।

ইনস্টাগ্রাম মার্কেটিং মোট দুই ভাবে করা যায়,

১.ফ্রিতে ইনস্টাগ্রাম মার্কেটিং করতে পারবেন।

২. টাকা পেইড করার মাধ্যমে ইনস্টাগ্রাম মার্কেটিং করতে পারবেন।

আপনাদের বোঝার সুবিধার্থে ফ্রিতে ইনস্টাগ্রাম মার্কেটিং এবং টাকা পেইট করার মাধ্যমে ইনস্টাগ্রাম

মার্কেটিং কিভাবে করতে হয় সে বিষয়ে আলোচনা করব। 

ফ্রিতে ইনস্টাগ্রম মার্কেটিং কিভাবে করবেন।

ফ্রিতে আপনারা যেহেতু ইনস্টাগ্রাম মার্কেটিং করতে চাচ্ছেন। তাই আপনাকে সময় এবং শ্রম দুটোই ব্যয় করতে হবে। 

এখন আপনার মনে প্রশ্ন জাগতে পারে ভাই, আমি সময় এবং শ্রম দিয়ে আসলে কোন কাজ গুলো করবো। আমি বলব ভাই, তাহলে পোস্টটি স্কিপ না করে পুরোটাই পড়ুন। তাহলে আপনার প্রশ্নের উত্তর পেয়ে যাবেন।

  • ফলোয়ার সংখ্যা বৃদ্ধি করুন

আপনারা ফ্রিতে কিংবা পেইডের মাধ্যমে ইনস্টাগ্রাম মার্কেটিং যদি করেন। তাহলে আপনাকে প্রথমেই ফলোয়ার সংখ্যা বৃদ্ধি করে নিতে হবে। 

ফলোয়ার সংখ্যা যত বৃদ্ধি হবে আপনার কোম্পানির প্রচার-প্রচারণায় ততো বৃদ্ধি পাবে।

প্রোফাইল সক্রিয় রাখুন।

প্রোফাইল সক্রিয় রাখার ব্যাপারে আপনাকে গুরুত্ব দিতে হবে। কারণ প্রোফাইল সক্রিয় না থাকলে আপনার ফলোয়ার সংখ্যা বৃদ্ধি পাবে না। এতে করে আপনি আশানুরূপ ইনস্টাগ্রম মারকেটিং করতে পারবেন না।

আপনার প্রোফাইলে নিয়মিত পোষ্ট পাবলিশ করুন। পোস্ট গুলো যেন আপনার বিজনেস রিলেটেড হয়। কোন আজেবাজে পোস্ট করবেন না। 

যেমনঃ আপনি যদি সিমের ব্যবসা করেন তাহলে সিম রিলেটেড সম্পর্কে পোস্ট পাবলিশ করার চেষ্টা করবেন।

সফল ইনস্টাগ্রাম মার্কেটিং ব্যক্তির সাথে সম্পর্ক অটুট রাখুন।

আপনারা যেহেতু নতুন একাউন্ট ক্রিয়েট করে ইনস্টাগ্রাম মার্কেটিং শুরু করছেন। আপনাদের উচিত যারা পুরাতন ইনস্টাগ্রাম মার্কেটিং ইউজার তাদের প্রোফাইল গুলো ফলো করা। তাহলে এখান থেকে আপনারা অনেক জ্ঞান লাভ করতে পারবেন। এবং দ্রুত অগ্রসর হতে পারবেন।

তাদের সাথে ভালো সম্পর্ক রাখার চেষ্টা করবেন। এবং আপনাদের কোন সমস্যা থাকলে তাদের কাছে তুলে ধরবেন।

ফলোয়ার্সদের সাথে সম্পর্ক অটুট রাখুন

আপনাদের বিজনেসের প্রোডাক্টটি যেন সবাই জানতে পারে। সেজন্য আপনাকে ফলোয়ার্সদের সাথে ভালো সম্পর্ক রাখতে হবে।

আপনার কোন ফলোয়ার্স কোন প্রোডাক্ট সম্পর্কে কমেন্ট করলো। তাহলে আপনার উচিত তার কমেন্টের রিপ্লাই দেওয়া। এতে করে ফলোয়ার্স এবং আপনার ভালো সম্পর্ক গড়ে উঠবে। এবং আপনার ফলোয়ারটি

আপনার কোম্পানি সম্পর্কে আরেকজনকে বলবে। আর এভাবেই আপনার ফলোয়ার সংখ্যা বৃদ্ধি পাবে।

পেইড ইনস্টাগ্রাম মার্কেটিং কিভাবে করবেন

এতক্ষণ আপনারা কিভাবে ফ্রিতে ইনস্টাগ্রাম মার্কেটিং করতে হয় তা জানলেন। এখন আপনাদের সামনে পেইড ইনস্টাগ্রাম মার্কেটিং কিভাবে করতে হয় সে সম্পর্কে বলবো।

হ্যালো ভিউয়ার্স আপনার যদি টাকা ইনভেস্ট করার সামর্থ্য থাকে তাহলে আপনি পেইড ইনস্টাগ্রাম মার্কেটিং করতে পারবেন।

পেইড ইনস্টাগ্রাম মার্কেটিং এ কোন প্রকার শ্রম দিতে হবে না। পেইড ইনস্টাগ্রাম মার্কেটিং এ আপনার মন ইচ্ছামত ফলোয়ার সংখ্যা বৃদ্ধি করতে পারবেন।

ইনস্টাগ্রাম কে অর্থ প্রদানের মাধ্যমে আপনি পেইড ইনস্টাগ্রাম মার্কেটিং করতে পারবেন। আপনাকে শুধু বলতে হবে আমার বিজনেস এর প্রচার প্রচারণা চালানোর জন্য একলক্ষ ফলোয়ার্স লাগবে। জাস্ট এটুকুই বলবেন আর কাজ হয়ে যাবে। 

আপনার বিজনেসের প্রচার প্রচারণা চালানোর জন্য দায়িত্ব এখন ইনস্টাগ্রামের। 

বোনাস টিপস

  • প্রথমত হতাশ হওয়া যাবে না। একাউন্ট তৈরীর পর আপনার ফলোয়ার সংখ্যা খুবই  কম। তাই বলে আপনি ইনস্টাগ্রাম মার্কেটিং বাদ দিবেন। এ কাজটি কখনো করবেন না সফলতা অর্জনের জন্য একটু কষ্ট ও ত্যাগ স্বীকার করতেই হবে তাহলে সফল হওয়া হবে।
  • আপনার পোস্টগুলোতে হ্যাশট্যাগ (#) ব্যবহার করবেন। এতে করে আপনার প্রোফাইলটি ইনস্টাগ্রাম ব্যবহারকারীরা খুব সহজেই দেখতে পারবেন।
  • দৈনিক পোস্ট করতে হবে। একদিনে ৫-১০ টা পোস্ট করে বসে থাকা যাবেনা। ৫-১০ টা পোস্ট করার দরকার নাই, অন্ততপক্ষে দৈনিক একটা হলেও পোস্ট পাবলিশ করার চেষ্টা করবেন।

5 Comments

  1. সুন্দর ইনফরমেশন দেওয়ার জন্য ধন্যবাদ।

Leave a Reply

Your email address will not be published.

Copyright © 2022 bdinfo71.com | All Rights Reserved.